আজ ৯ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৩শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

কিশোরগঞ্জের ভৈরবের কর্তাবাড়ি জামে মসজিদের প্রাচীন মিনার সংরক্ষিত হচ্ছে

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি
কিশোরগঞ্জের ভৈরব উপজেলাধীন সাদেকপুর ইউনিয়নের মৌটুপী গ্রামের কর্তাবাড়ি জামে মসজিদের প্রাচীন মিনারটি সংরক্ষিত হচ্ছে। জানা গেছে, মিনারটির ঐতিহাসিক গুরুত্ব থাকায় পুরাকীর্তি হিসেবে সংরক্ষণের জন্য প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অতিরিক্ত সচিব মোঃ হান্নান মিয়া সম্প্রতি একটি পত্র দেন কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসক বরাবরে| পত্রের আলোকে জেলা প্রশাসক মোঃ সারওয়ার মুর্শেদ চৌধুরী প্রত্নস্থাপনাটি ১৯৬৮সালের পুরাকীর্তি আইন অনুসারে সংরক্ষণযোগ্য বিধায় মিনারটি সংরক্ষণের সুপারিশসহ ভূমি তফসীল প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বরাবরে প্রেরণ করেছেন। সোমবার (২৭ জুলাই) পত্র প্রেরণের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের আরডিসি মোঃ ফজলে রাব্বি।
এর আগে ভৈরব উপজেলাধীন সাদেকপুর ইউনিয়নের মৌটুপী গ্রামের কর্তাবাড়ি জামে মসজিদের প্রাচীন মিনারটি ১৯৬৮ সালের পুরাকীর্তি আইন অনুযায়ী সংরক্ষণযোগ্য মর্মে প্রত্নতত্ত্ববিদগণ মতামত দিয়েছেন। প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর প্রশাসনিক মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা মোতাবেক সংরক্ষিত পুরাকীর্তি ঘোষণার জন্য ভূমি তফসীলসহ স্থানীয় প্রশাসন ও জনগণের মতামত চাইলে ভৈরব উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর মাধ্যমে নির্ধারিত ছক মোতাবেক জেলা প্রশাসনে প্রতিবেদন প্রেরণ করেন। উক্ত প্রতিবেদনের প্রেক্ষিতে নির্ধারিত ছকে জেলা প্রশাসক ভূমির তফসীলসহ সংরক্ষণযোগ্য মতামত ও সুপারিশ প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বরাবরে সদয় অবগতি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য তা প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানা গেছে।
মৌটুপী গ্রামের কর্তাবাড়ি জামে মসজিদ পরিচালনা কমিটির সভাপতি মোঃ ইকবাল হোসেনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, মসজিদটির প্রাচীন মিনারটি প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর কর্তৃক পুরাকীর্তি হিসেবে সংরক্ষণ করার উদ্যোগ নেওয়ায় মসজিদ পরিচালনা কমিটির পক্ষ থেকে সাধুবাদ জানাচ্ছি।
কিশোরগঞ্জ আরকিওলজিক্যাল সোসাটির সভাপতি আমিনুল হক সাদী বলেন, জেলা প্রশাসন মসজিদটি সংরক্ষণের জন্য মতামত দেওয়ায় এবং প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর কর্তৃক পুরাকীর্তি হিসেবে সংরক্ষণ করার উদ্যোগ নেওয়ায় সংশ্লিষ্টদেরকে আন্তরিক অভিনন্দন জানান।

Facebook Comments Box

Comments are closed.

     More News Of This Category