আজ ৩রা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৭ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

ঋণের বুঝা শোধ করতে কিডনি বিক্রির বিজ্ঞাপন

অনলাইন ডেস্কঃ মাথার ওপর ৯০ লাখ রুপির দেনা। । দীর্ঘদিনের লকডাউনের ব্যবসা লাটে উঠেছে। ধার শোধ করতে তাই এবার সংবাদপত্রে নিজের কিডনি বিক্রির বিজ্ঞাপন দিলেন কাশ্মীরের এক ব্যবসায়ী, যা দেখে অবাক অনেকেই।

জানা গেছে, স্থানীয় একটি সংবাদমাধ্যমে নিজের কিডনি বিক্রির বিজ্ঞাপন দেন দক্ষিণ কাশ্মীরের কুলগাম জেলার কাজিগুন্দের নুস্সু গ্রামের বাসিন্দা সাবজার আহমেদ খান। দীর্ঘদিন ধরেই গাড়ির ব্যবসা করতেন তিনি। এ ছাড়া সরকারি কন্ট্রাক্টরও ছিলেন তিনি। কিন্তু পরপর দুটি লকডাউনে ব্যবসা কার্যত বন্ধ হয়ে যায়।

এর ফলে বাড়তে থাকে দেনার পরিমাণ। তারপরই পরিবারের লোককে জানিয়ে এমন সিদ্ধান্ত নেন সাবজার।
আসলে করোনা আবহে দেশজুড়ে লকডাউনের আগেই কাশ্মীর উপত্যকায় জারি ছিল আরও একপ্রস্থ ‘‌লকডাউন’‌। গত বছর ৩৭০ ধারা রদের পরই ইন্টারনেটসহ সমস্ত কিছু বহুদিন ধরেই বন্ধ ছিল সেখানে।

অশান্তি এড়াতেই এই সিদ্ধান্ত, জানিয়েছিল ভারতের কেন্দ্র। কিন্তু তাতে অনেক স্থানীয় ব্যবসায়ীই ক্ষতির সম্মুখীন হন। এরপর সবকিছু যখন ধীরে ধীরে স্বাভাবিকের পথে তখন আবারও লকডাউন। ফলে ক্ষতির পরিমাণ আরও বাড়ে।
একই অবস্থা হয় সাবজারেরও।

ব্যবসা বন্ধ থাকায় দেনার পরিমাণ বেড়ে দাঁড়ায় ৯০ লাখ টাকা। বর্তমানে কাজ বন্ধ থাকায় বাড়িতেই রয়েছেন তিনি। ছোট ভাই শ্রমিকের কাজ করে সংসার খরচ চালান।
এদিকে পাওনাদারদের টাকা ফেরত দিতে না পারার লজ্জা থেকেই শেষপর্যন্ত কিডনি বিক্রির সিদ্ধান্ত নেন সাবজার। বেআইনি জেনেও সংবাদপত্রে বিজ্ঞাপন দেন।

এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, ‘‌অনেকেই আমার কাছে টাকা পায়। কিন্তু আমি এখন নিঃস্ব। তাই ধার শোধ করতে কিডনি বিক্রির সিদ্ধান্ত নিই। ’‌‌

ইতোমধ্যে বেশ কিছু ফোনও পেয়েছেন সাবজার। কেউ ২০ লাখ তো, কেউ ২৫ লাখ টাকা দিতে রাজি। তবে সাবজারের প্রয়োজন আরও অনেক বেশি অর্থের। তাই তিনি কিছুদিন অপেক্ষা করতে চান। এরপর যে বেশি টাকা দেবে, তার কাছেই নিজের কিডনি বিক্রি করবেন বলে জানান তিনি। তথ্য সূত্র:বিডি প্রতিদিন

মানব চেতনা/এমার

Facebook Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category